পৃথিবীর সবচাইতে দামি মোরগ – আইয়াম সেমানি

পৃথিবীর সবচাইতে দামি মোরগ - আইয়াম সেমানি
পৃথিবীর সবচাইতে দামি মোরগ - আইয়াম সেমানি

পৃথিবীর সবচাইতে দামি মোরগ – সাধারনত আমরা দেখেছি  আমাদের দেশে একটি মোরগের দাম পাঁচশত কিংবা দুই হাজার পর্যন্ত হতে পারে। কিন্তু আপনাকে যদি বলা হয় আমাদের পৃথিবীতে এমনো মোরগ রয়েছে যার দাম কিনা লাখেরো উপরে। 

আপনার বিশ্বাস না হলেও এটাই সত্যিযে আইয়াম সেমানি নামে একজাতের কাল মোরগ রয়েছে যার দাম কিনা এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ দুই লাখেরো বেশি ছাড়িয়ে গিয়েছে। শুরুতে হয়তো এই মোরগ কে দেখে আপনি ভাবতে পাররেন এর গায়ে কালো রং করা হয়েছে।

কিন্তু আসল ব্যপারটি হচ্ছে এই মোরগের উপরের অংশ নয় বরং এই মোরগের ভেতরের মাংশ দেখতেও কুচ কুচে কালো। এদের দেহের শুধুমাত্র লাল রক্ত বাদে বলা যেতে পারে এর সম্পূর্ন অংশই কালো।

সমোগ্র বিশ্বে ইন্দোনেশিয়া সহ বর্তমানে ভারতের মধ্যে প্রদেশ, রাজস্থান সহ ইউরোপের বিভিন্ন দেশে এই মোরগ পাওয়া যাচ্ছে । যদিও ভারতে সকলের কাছেই এই মোরগটি কাদাকনাথ নামে পরিচিত। যার অর্থ হচ্ছে প্রবল বা শিবের দেবতা।

অনেকেই বিশ্বাস করেন এই মোরগের মাংস খেলে তা অনেকটাই উপকারি। বিশেষ করে প্রসবের পরে শরীরের অবস্থা পুনরুদ্ধারের জন্য মহিলাদেরকে এই মাংস খাওয়ানোর কথা শোনা যায়। এছাড়াও শরীরে ব্যাথা সহ বিভিন্ন সমস্যা পরিত্রানে এই মাংসকে খাওয়া হয়।

পৃথিবীর সবচাইতে দামি মোরগ - আইয়াম সেমানি
পৃথিবীর সবচাইতে দামি মোরগ – আইয়াম সেমানির দেহের বিভিন্ন অংশের মাংস

 বলা হয় বংশ পরম্পরায় নাকি এই মোরগ জাত গুল কালো হয়ে আসছে। মূলত এই সকল মোরগের স্পেশাল জিংক হাইপারপিগমেন্টেশনের কারনেই এই মোরগ গুল দেখতে এমন কাল হয়ে থাকে। যদিও সবচাইতে অবাক করার বিষয় হচ্ছে এই মোরগের দাম।

 যানা যায় এখন পর্যন্ত আইয়াম সেমানি চিকেন বা কালো মোরগকে আড়াই হাজার ডলারে বিক্রি করা হয়েছে।  যা আমাদের দেশের বর্তমান বাজার মূল্যের প্রায় দুই লক্ষ টাকার চাইতে বেশি মূল্যের।

অবশ্য শুধু যে দামেই এই মোরগের নাম হয়েছে তা নয়, বরং এই কালো মোরগ যারা খেয়েছেন তারা দাবি করেছেন সাধারন মোরগ থেকে এই কালো মোরগ অনেকটাই সুস্বাদু এবং পুষ্টিকর।

তবে আসল কথাটি হচ্ছে মোরগে যত ধরনেরই পুষ্টি থাকুক না কেন। অন্তত বুদ্ধিমান কোন মানুষ এমন কালো মোরগের পাল্লায় পরে একটি বারের জন্য কখনই নিজ পকেট থেকে আড়াই হাজার ডলার নষ্ট করতে চাইবেনা।

উল্লেখ্য যানা গিয়েছে এই কালো মোরগের ব্যাবহার করে বিভিন্ন দেশের সাধু কিংবা ত্রান্তিক কালো জাদু পর্যন্ত করে থাকেন। এছাড়াও এই জাতের মোরগের পাশাপাশী মুরগিও বিদ্ধমান।

আরো পড়ুন –

স্ন্যাক অ্যাইসল্যান্ড – বা কুইউমাডা গ্রান্ডা অ্যাইসল্যান্ড
শেয়ার করুন -

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন